পাহাড়ের সঙ্গে ধাক্কা লেগে ‍বিধ্বস্ত রুশ বিমান

অবতরণের সময় পাহাড়ের সঙ্গে ধাক্কা লেগে বিধ্বস্ত রুশ বিমান, সব আরোহী নিহত

কয়েক দশক পুরনো একটি যাত্রীবাহী বিমান রাশিয়া দূর প্রাচ্যের কামচাতকা উপত্যকায় মঙ্গলবার নিখোঁজ হয়েছে। ওই বিমানটিতে অন্তত একজন শিশুসহ ২৮ জন আরোহী ছিল। তারা সবাই বিমান দুর্ঘটনায় মারা গেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। খবর আল জাজিরার।

অ্যান্টোনভ মডেলের ওই বিমানটির দুই ইঞ্জিন রয়েছে। ১৯৮২ সাল থেকে ওই বিমানটি তার কার্যক্রম পরিচালনা করছিল। ওই বিমানটি আঞ্চলিক রাজধানী পেত্রোপাভালোভস্ক-কামচাতকা থেকে উত্তরপশ্চিমাঞ্চলীয় কামচাতকার পালানা শহরে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোলের সঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয় বিমানটির

রাশিয়ার জরুরি মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ওই বিমানটিতে ২২ জন যাত্রী এবং ছয়জন ক্রু সদস্য ছিল। আরোহীদের অধিকাংশই পালানা শহরের বাসিন্দা। ওখোটস্ক সাগরের কাছে অবস্থিত এই শহরটিতে মাত্র ২ হাজার ৯০০ জন লোক মানুষ করে। স্থানীয় একজন কর্মকর্তা জানান, ‘তল্লাশি এবং উদ্ধার তৎপরতা’ চালানো হচ্ছে।

ওই কর্মকর্তা বলেন, আমরা এখন পর্যন্ত যা জানি তা হলো বিমানটির সঙ্গে আমাদের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে এবং এটা বিমানবন্দরে অবতরণ করেনি। প্রত্যন্ত অঞ্চলে পরিবহনের জন্য অন্যতম বিশ্বাসযোগ্য বাহন হিসেবে এই মডেলের বিমানটি জায়গা করে নিয়েছিল।