ভারতে রাষ্ট্রপতির সফরের জন্য আটকানো হলো গাড়ি, অসুস্থ নারীর মৃত্যু

ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের গাড়িবহর যাবে, তাই আটকে দেওয়া হয়েছিল গাড়ি চলাচল। এতে তৈরি হয় যানজট। আর, সেই যানজট কাটিয়ে অসুস্থ এক নারীকে সময়মতো হাসপাতালে নিতে না পারায় মৃত্যু হয় তাঁর। সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দু ও লাইভ হিন্দুস্তান এ খবর জানিয়েছে।হিন্দুস্তান টাইমস গ্রুপের ‘লাইভ হিন্দুস্তান’-এর প্রতিবেদন অনুযায়ী, ওই নারীর মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেছেন রামনাথ কোবিন্দ এবং ফার্স্ট লেডি সবিতা কোবিন্দ।

জানা গেছে, তিন দিনের সফরে গত শুক্রবার রাতে উত্তরপ্রদেশের কানপুরে পৌঁছান ভারতের রাষ্ট্রপতি। ‘লাইভ হিন্দুস্তান’-এর প্রতিবেদন অনুযায়ী, রাষ্ট্রপতি যাবেন বলে গোবিন্দপুরী সেতু থেকে ফজলগঞ্জ পর্যন্ত যান চলাচল আটকে দেওয়া হয়। এতে ব্যাপক যানজট তৈরি হয়। আটকা পড়েন অসুস্থ ওই নারী। গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় সে সময় তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। কিন্তু, যানজটের জেরে সময়মতো হাসপাতালে পৌঁছানো যায়নি। এর জেরে মৃত্যু হয় বন্দনা মিশ্র নামের ওই নারীর। বন্দনা ইন্ডিয়ান ইন্ডাস্ট্রিজ অ্যাসোসিয়েশনের (আইআইএ) কানপুর চ্যাপ্টারের নারী বিভাগের প্রধান ছিলেন। পরে হাসপাতালে নিয়ে গেলে বন্দনা মিশ্রকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকেরা

সে ঘটনায় এরই মধ্যে ক্ষমা চেয়েছেন কানপুরের পুলিশ কমিশনার অসীম অরুণ। টুইটারে তিনি লেখেন, ‘আইআইএ’র বন্দনা মিশ্রের মৃত্যুতে কানপুর পুলিশের পক্ষ থেকে ক্ষমা চাইছি। ভবিষ্যতের জন্য এটা আমাদের কাছে বড় ধরনের শিক্ষণীয় বিষয়। আমরা প্রতিজ্ঞা করছি আমাদের রুট ব্যবস্থা এমন হবে যে, ন্যূনতম সময়ের জন্য যেন নাগরিকদের আটকানো হয়, যাতে এ ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি না হয়।’

‘লাইভ হিন্দুস্তান’ বলছে, ঘটনার পর বন্দনার বাড়িতে যান কানপুরের পুলিশ কমিশনার, জেলা প্রশাসক অলোক তিওয়ারিসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা।দ্য হিন্দু জানিয়েছে, নারীর মৃত্যুর ঘটনায় একজন উপপরিদর্শক এবং তিন জন হেড কনস্টেবলকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।